logo
news image

পাকশীর বীরমুক্তিযোদ্ধা সেলিম হত্যাকারী গ্রেফতার ও বিচারের দাবিতে ঈশ্বরদীতে মানববন্ধন ও সমাবেশ

ঈশ্বরদী (পাবনা) প্রতিনিধি:
পাকশীর বীরমুক্তিযোদ্ধা ও আওয়ামীলীগ নেতা মোস্তাফিজুর রহমান সেলিম হত্যাকান্ডের ৩১ মাসেও হত্যাকারী গ্রেফতার এবং বিচার শুরু না হওয়ায় ঈশ্বরদীতে মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সামনের সড়কে মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।


রবিবার (১২ সেপ্টেম্বর) মুক্তিযোদ্ধা-জনতার ব্যানারে  আয়োজিত মানববন্ধন ও সমাবেশে প্রধান অতিথি  ছিলেন পাবনা-৪ আসনের সংসদ সদস্য  বীরমুক্তিযোদ্ধা  আলহাজ্ব নুরুজ্জামান বিশ্বাস। সভাপতিত্ব করেন বীরমুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফা চান্না মন্ডল।

 বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আ’লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব নায়েব আলী বিশ্বাস, বীরমুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ রশিদুল্লাহ, বীরমুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালেক,  ঈশ্বরদী পৌর আ’লীগের সভাপতি সাবেক মেয়র আবুল কালাম আজাদ মিন্টু, পৌর আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌরসভার মেয়র ইছাহক আলী মালিথা, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম খান,  বীরমুক্তিযোদ্ধা সিরাজ উদ্দিন বিশ্বাস, বীরমুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম রফিক, বীরমুক্তিযোদ্ধা হবিবুল ইসলাম হব্বুল, জেলা পরিষদের সদস্য শফিউল আলম বিশ্বাস, পাকশীর আ’লীগ নেতা রেজাউল করিম রাজা, উপজেলা কৃষকলীগের যুগ্ম আহবায়ক মুরাদ আলী মালিথা, স্বেচ্ছাসেবকলীগের আহবায়ক মাসুদ রানা, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের আহবায়ক আব্দুর রহমান মিলন, নিহত মুক্তিযোদ্ধা সেলিমের মেয়ে অন্তরা রহমান ও সানজানা রহমান তৃপা প্রমূখ। সভা সঞ্চালনা করেন বীরমুক্তিযোদ্ধা ফজলুর রহমান ফান্টু।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন আ’লীগ নেতা আলাউদ্দিন প্রামাণিক, তুতুল বিশ্বাস, আলহাজজ্ব আব্দুল আজিজ, বীরমুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাই চৌধুরী মঞ্জু, কৃষক লীগ নেতা ফজলুর রহমান মালিথা, পাকশীর চেয়ারম্যান এনাম বিশ্বাস, আওয়ামী লীগ নেতা জহুরুল হক মালিথা, তরিকুল ইসলাম ভাদু, শ্রমিকলীগ নেতা আজাহার মালিথা, স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা সজিব মালিথাসহ বীরমুক্তিযোদ্ধা, দলীয় নেতাকর্মী ও সাধারণ জনতা মানববন্ধনে অংশ নেন।
প্রসঙ্গত: ২০১৯ সালের ৬ ফেব্রুয়ারী রাতে রূপপুরে নিজ বাড়ির সামনে বীরমুক্তিযোদ্ধা ও আওয়ামীলীগে নেতা মোস্তাফিজুর রহমান সেলিম আততায়ীর গুলিতে নিহত হন। সেলিম হত্যার প্রতিবাদে ঈশ্বরদী ও পাকশীতে হরতাল, অবরোধসহ বেশ কযেকদফা মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হলেও ৩১ মাসেও প্রকৃত আসামী চিহ্ণিত ও গ্রেফতার হয়নি। এই হত্যা মামলার তদন্ত বর্তমানে পিবিআইতে ন্যাস্ত রয়েছে বলে জানা গেছে। 

সাম্প্রতিক মন্তব্য