logo
news image

প্রবাসী চম্পা জামান-মানবতার দৃষ্টান্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক।।
একের পর এক মানবসেবা মূলক কাজ করে প্রশংসা কুড়াচ্ছেন নাটোরের লালপুর উপজেলার সিঙ্গাপুর প্রবাসী চম্পা জামান। দরিদ্র অসহায় নারীদের চিকিৎসা, দুস্থ শিশুদের পোশাক কিনে দেওয়া, দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের শিক্ষা উপকরণ কিনে দেওয়া, শীতবস্ত্র বিতরণ, ভূমিহীনদের বাড়ি করে দেওয়া, মসজিদ ও বিভিন্ন ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে আর্থিক সহযোগিতা ও মেরামতসহ বিভিন্ন ধরনের সেবামূলক কাজ তিনি করে চলেছেন। তিনি উপজেলার ২নং ঈশ্বরদী ইউপির গৌরিপুর গ্রামের সিঙ্গাপুর প্রবাসী হাসানুজ্জামানের স্ত্রী ও সিঙ্গাপুরের এইসসিজেড কোম্পানীর পরিচালক।
চম্পা জামান বলেন, ‘আমি ২০০৮ সাল থেকে সাধারণ মানুষের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছি। এর আগে আমার বড় ছেলে সম্রাটের অকাল মৃত্যু হয়। সেই থেকে আমি সাধারণ মানুষের উপকার করতে থাকি। এরপর তার নামে সম্রাট চ্যারিটেবল ট্রাস্ট সমিতি গঠন করে লালপুর উপজেলার দুঃস্থ ও অসহায় মানুষের বিভিন্ন সেবা করে থাকি। আমি যতদিন বাঁচবো আমার সাধ্য মতো অসহায় মানুষের সেবা করে যাবো। এ যাবৎ আমি কমপক্ষে ৫০ জন অসহায় নারীকে চোখের অপারেশন করিয়েছি। একজন গরীব মানুষের কিডনি সম্পূর্ণ নষ্ট হয়ে গিয়েছিল। আমি সম্পূর্ণ খরচ বহন করে তার চিকিৎসা করিয়েছি। বর্তমানে সে সুস্থ হয়ে কাজ করে সংসার চালাচ্ছে। এছাড়া আমার নিজস্ব অর্থায়নে মসজিদ ও অন্যান্য ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান করে দিয়েছি। শীতার্ত মানুষদের শীতবস্ত্র বিতরণ ও পিছিয়ে পড়া নারী শিক্ষার্থীদের অর্থনৈতিকভাবে সহযোগিতা করে থাকি।

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top