logo
news image

বড়াইগ্রামে দুটি যাত্রীবাহী বাসের সংঘর্ষে ১ নিহত আহত ১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক, বড়াইগ্রাম নাটোর
নাটোরের বড়াইগ্রামে দুটি যাত্রীবাহী বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে অজ্ঞাত আব্দুস সামাদ (৬৫) নামের এক ব্যাক্তি নিহত ১৭ জন আহত হয়েছে। গতকাল বুধবার বেলা ১১টার দিকে নাটোর-পাবনা মহাসড়কের কালিকাপুর কৃষি ও কারিগরী কলেজ মোড় এলাকায় ঘটনা ঘটে। আহতদে উদ্বার করে বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন উপজেলা নির্বাহী কমকর্তা আনোয়ান পারভেজ। নিহত ব্যাক্তি সদর উপজেলার আটদিয়া কাটাখালি গ্রামের মৃত আজিজের পুত্র।
এলাকাবাসী ও হাইওয়ে পুলিশ সুত্রে জানাযায়, রাজশাহী থেকে ছেড়ে পাবনাগামী তুহিন পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাস (ঢাকা মেট্রো ব-১১-০৯০৫) ও পাবনা থেকে ছেড়ে আসা রাজশাহী গামী সেজান পরিবহরের বাস (পাবনা  ব-১১-০১০০) সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই অজ্ঞাত (৬৫) ব্যাক্তি নিহত হয়। আহতদের এলাকাবাসী, পুলিশ ও বনপাড়া ফায়ার সার্ভিসের কর্মীগণ উদ্ধার করে বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করে। আহতদের মধ্যে দুই জনের অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
বনপাড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এ.এস.আই মো. আসমাউল হক জানান, দুর্ঘটনায় আহতদের মধ্যে বনপাড়া আমিনা হাসপাতালে মালেক (৩০), রফিউজ্জামান (৬২), বিউটি খাতুন (২৬), আসমা খাতুন (২৪), তাহাজুল (৫০), আবু তাহের (৭১), গৌতম কুমার (৩৪), আজাহার (৭০), মেহেদী হাসান (৩৭), জিয়াউল হক (৩০) ও বাবু (২৫) এবং বনপাড়া পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালে সুমি খাতুন (২৭) ও বারেককে (৫৫) ভর্তি করা হয়েছে। 
বনপাড়া হাইওয়ে থানার পরিদর্শক খন্দকার শফিকুল ইসলাম জানান, বাস দুটি আটক করা হয়েছে। চালক পলাতক রয়েছে। মামলার প্রস্তুতি চলছে।

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top