logo
news image

স্বল্পোন্নত দেশে মানবসম্পদকে উন্নয়নশীল দেশের কাতারে আনা ও দক্ষ করে তোলার তাগিদ

স্বল্পোন্নত দেশের (এলডিসি) তালিকা থেকে উন্নয়নশীল দেশের কাতারে উন্নীত হওয়ার আগেই দেশের মানবসম্পদকে দক্ষ করে তোলার তাগিদ দিয়েছেন সুধীসমাজের প্রতিনিধিরা। তাঁরা বলেছেন, বাংলাদেশ উন্নয়নশীল দেশে উন্নীত হওয়ার পর ইউরোপের বাজারে অগ্রাধিকারমূলক বাজার সুবিধা, কম সুদে ঋণসহ বিশ্ব বাণিজ্যে বেশ কিছু সুবিধা হারাবে। সেসব সুবিধা হারানোর পর দেশের অর্থনীতির ওপর যাতে কোনো প্রভাব না পড়ে, সে জন্য এখন থেকে শিক্ষা ও স্বাস্থ্য খাতে বাজেটে বরাদ্দ বাড়ানোর দাবি জানিয়েছেন তাঁরা। শনিবার রাজধানীর সিরডাপ মিলনায়তনে ‘স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উত্তরণ ও টেকসই উন্নয়ন : প্রেক্ষিত বাংলাদেশ’ শিরোনামের সেমিনারটি যৌথভাবে আয়োজন করে বেসরকারি সংস্থা ইক্যুইটিবিডি এবং এলডিসি ওয়াচ।

সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বেসরকারি সংস্থা কোস্ট ট্রাস্টের উপপরিচালক সৈয়দ আমিনুল হক। প্রবন্ধে তিনি উল্লেখ করেন, ‘স্বল্পোন্নত দেশের তালিকা থেকে বের হলে বাংলাদেশকে বেশ কিছু চ্যালেঞ্জে পড়তে হবে। সেসব চ্যালেঞ্জ যাতে মোকাবেলা করা যায়, সে জন্য এখন থেকে প্রস্তুতি নিতে হবে সরকারকে। তাই সরকারের নিজস্ব বিনিয়োগ সামর্থ্য বাড়াতে কর ফাঁকি ও অবৈধ অর্থপাচার বন্ধে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। প্রয়োজনীয় দক্ষ জনশক্তি বাড়ানোর লক্ষ্যে শিক্ষা ও স্বাস্থ্য খাতে বরাদ্দ বাড়াতে হবে। এ ছাড়া উপকূলীয় মানুষ ও সম্পদ বাঁচাতে জলবায়ু মোকাবেলায় সক্ষম অবকাঠামো গড়ে তুলতে হবে। উন্নয়ন কার্যকারিতা বাড়াতে কার্যকর সুশাসন প্রতিষ্ঠা করতে হবে।’

 

সেমিনারে প্রধান অতিথি ছিলেন পল্লী কর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশনের (পিকেএসএফ) চেয়ারম্যান ড. কাজী খলীকুজ্জমান আহমদ। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন পরিকল্পনা কমিশনের সাধারণ অর্থনীতি বিভাগের সদস্য ড. শামসুল আলম, ডাব্লিউটিও সেলের পরিচালক ও যুগ্ম সচিব হাফিজুর রহমান, এলডিসি ওয়াচের আন্তর্জাতিক সমন্বয়কারী নেপালের গৌরি প্রধান এবং অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের (ইআরডি) উপসচিব আনোয়ার হোসেন। সেমিনারে সঞ্চালকের দায়িত্ব পালন করেন ইক্যুইটিবিডির নির্বাহী পরিচালক রেজাউল করিম চৌধুরী।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top