logo
news image

বড়াইগ্রামে কাজী ও কণের বাবা-মায়ের জরিমানা

নিজস্ব প্রতিবেদক, বড়াইগ্রাম নাটোর
নাটোরের বড়াইগ্রামে বাল্যবিয়ের অপরাধে কাজী ও কণের বাবা-মাকে ৩৫ হাজার টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমান আদালত। গতকাল সোমবার সন্ধায় উপজেলার রহমতপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ইউএনও আনোয়ার পারভেজ ওই আদালত পরিচালনা করেন।
বড়াইগ্রাম থানার উপ-পরিদর্শক লিটন সাহা জানান, রহমপুর গ্রামের আনছার আলী (৬০) তার নবম শ্রেণী পড়–য়া নাবালিকা মেয়েকে (১৫) জনৈক ছেলের সাথে গোপনে বিয়ে দিয়ে দেয়। সোমবার বিকেলে কণের বাড়ি থেকে বর এসে নিয়ে যাবে। খবর পেয়ে ইউএনও আনোয়ার পারভেজ ওই বাড়িতে পুলিশসহ অভিযান চালান। এসময় বিয়েতে আমন্ত্রীতরা পালিয়ে গেলেও কণের বাবা আনছার আলী, মা ফাতেমা বেগম এবং বিয়ে পড়ানো কাজী শ্রীরামপুর গ্রামের মৃত জান মোহাম্মদের ছেলে ও দিঘলকান্দি মাদরাসার শিক্ষক আবু সাঈদকে (৪৮) ধরে ফেলেন। পরে সন্ধায় সেখানে ভ্রাম্যমান আদালত বসিয়ে কাজী ক্যান্সার রোগে আক্রান্ত থাকায় জেল না দিয়ে সকলকে একত্রে ৩৫ হাজার টাকা জরিমানা করেন। এসময় কাজী আবু সাঈদ ভবিষ্যতে আর এমন ধরণের বাল্যবিয়ে না পড়ানো অঙ্গীকার করে মুক্ত হন।
ইউএনও আনোয়ার পারভেজ বলেন, বাল্যবিয়ের বিরুদ্ধে আমাদের কোন ছাড় নাই। গোপনে আগে পরে কেই বিয়ে দিয়ে ফেললেও তাদেরকে আইনের আওতায় এনে শাস্তি দেয়া হবে।

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top