logo
news image

নাটোর ভিশন বাস্তবায়ন করতে হবে-প্রতিমন্ত্রী পলক

নিজস্ব প্রতিবেদক।  ।  
তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, প্রস্তাবিত ‘নাটোর ভিশন’ বাস্তবায়ন প্রশাসনের একার পক্ষে সম্ভব নয়। জনপ্রতিনিধি, সুধী সমাজ, শিক্ষক, সাংবাদিকসহ সকল পেশার মানুষের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় নাটোর ভিশন বাস্তবায়ন করতে হবে।’
শনিবার (৬ অক্টোবর) দুপুরে নাটোর জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে ‘নাটোর ভিশনসহ বেশ কয়েকটি গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচনকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী এসব কথা বলেন।
পলক বলেন, ‘জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বেঁচে থাকলে স্বাধীনতার ২০ বছরের মধ্যেই উন্নত রাষ্ট্রে পরিণত হতো বাংলাদেশ। স্বাধীনতার পর ৪৭ বছরের মধ্যে মাত্র ১৮ বছর রাষ্ট্রক্ষমতায় ছিলো আওয়ামী লীগ। এই সময়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ উন্নয়ন, চ্যালেঞ্জ ও মানবতার বিচারে বিশ্বের বুকে মর্যাদার আসনে অধিষ্ঠিত হয়েছে। উন্নত বাংলাদেশ বিনির্মাণের কাজ ইতোমধ্যে শুরু হয়ে গেছে।
বাংলাদেশের অভাবনীয় অগ্রগ্রতি অনেক দেশ ঈর্ষার চোখে দেখে।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রত্যয়ী ও চ্যালেঞ্জ নিতে পছন্দ করেন। তার নেতৃত্বগুণ ও দূরদর্শিতায় পদ্মাসেতুর মতো মেগা প্রকল্প নিজস্ব অর্থায়নে করার সক্ষমতা অর্জন করেছে বাংলাদেশ। দেশের ভেতরের ও বাইরের বহু ষড়যন্ত্র উপেক্ষা করে দেশের উন্নয়ন যাত্রা অব্যাহত রয়েছে।’
আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন ‘অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ’ উল্লেখ করে পলক বলেন, ‘ভবিষ্যত প্রজন্মের জন্য গর্বিত বাংলাদেশ বিনির্মাণ করতে হবে। এ লক্ষ্যে আওয়ামী লীগ সরকারের কোন বিকল্প নেই।’ দেশের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে আগামী নির্বাচনে পুনরায় নৌকাকে বিজয়ী করার আহ্বান জানান পলক।
প্রশাসক শাহিনা খাতুনের সভাপতিত্বে প্রকাশনা উৎসবে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সংসদ সদস্য অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুস, নাটোর-২ আসনের সংসদ সদস্য শফিকুল ইসলাম শিমুল, নাটোর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সাজেদুর রহমান খান, বড়াইগ্রাম উপজেলা পরিষদের চেয়ারশ্যান ডা. সিদ্দিকুর রহমান পাটোয়ারী, সিংড়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম শফিক, নাটোর পৌরসভার মেয়র উমা চৌধুরি জলি, স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-রিচালক গোলাম রাব্বী, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক ড. রাজ্জাকুল ইসলামসহ জনপ্রতিনিধি, সুধী সমাজ ও সাংবাদিকবৃন্দ।
এরআগে নাটোর জেলা উন্নয়ন কর্মপরিকল্পনা বইয়ের ওপর আলোচনা করেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক ড. রাজ্জাকুল ইসলাম, রাজকুমারী ইন্দুপ্রভার আত্মকথা বইয়ের ওপর আলোচনা করেন প্রথম আলোর রাজশাহীর নিজস্ব প্রতিবেদক আবুল কালাম আজাদ এবং শাহিনা খাতুনের লেখা হাঁটার গান বইয়ের ওপর আলোচনা করেন সাংবাদিক পরিতোষ অধিকারী।
জেলা প্রশাসক শাহিনা খাতুন দেশের প্রথম জেলা হিসেবে নাটোর জেলা কর্মপরিকল্পনা প্রকাশ করার উদ্যোগ গ্রহন করেন। জেলা কর্মপরিকল্পনাটি সরকারের ” রূপকল্প ২০২১, টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট ২০৩০ এবং রূপকল্প ২০৪১: নিয়ে এই কর্মপরিকল্পনা সাজানো হয়েছে। মোট ৩৩২পৃষ্টার এই বইটিতে সরকারের ৪৫টি দপ্তরের কর্মপরিকল্পনা তুলে ধরা হয়েছে। এতে শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কর্মসংস্থান সহ নানা বিষয়ে প্রাধান্য দেওয়া হয়েছে।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য