logo
news image

তাপমাত্রা সেই ১০ ডিগ্রির নিচেই

। ৩ জানুয়ারি থেকে শুরু হওয়া তীব্র শীতে গতকাল পর্যন্ত অন্তত ৩৮ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। গতকাল দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল চুয়াডাঙ্গায়—৫ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

নাটোর সদর ও গুরুদাসপুরে গতকাল সকালে শীতের কারণে এক বৃদ্ধাসহ দুজনের মৃত্যু হয়েছে। নাটোর রেলস্টেশন সূত্রে জানা যায়, প্ল্যাটফর্ম থেকে অজ্ঞাত এক বৃদ্ধার (৭৫) মৃতদেহ উদ্ধার করেছে রেলওয়ে পুলিশ। সহকারী স্টেশনমাস্টার অশোক চক্রবর্তী বলেন, ওই বৃদ্ধা কয়েক দিন ধরে প্ল্যাটফর্মে ছিলেন। গায়ে শীতের পোশাক ছিল না। গতকাল সকালে তাঁকে মৃত অবস্থায় পাওয়া যায়। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, তীব্র শীতে তাঁর মৃত্যু হয়েছে।

নাটোরের গুরুদাসপুরের পুরুলিয়া গ্রামের রফিকুল ইসলাম (৩৫) নামে এক ভ্যানচালকের মৃত্যু হয়েছে। ভোরে ভ্যানে করে মাছ নিয়ে সিরাজগঞ্জ যাওয়ার পথে মহিশুটি নামক স্থানে পৌঁছার পর রাস্তাতেই তাঁর মৃত্যু হয়। মৃত্যুর আগমুহূর্তে তিনি শীতে কাঁপছিলেন।

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে তীব্র শৈত্যপ্রবাহে মালিপাড়া গ্রামে কছের সওদাগর (৭৫) নামে এক বৃদ্ধা মারা গেছেন। বেলা সাড়ে ১১টায় শীতে কাঁপতে কাঁপতে বাড়ি থেকে মালিপাড়া মোড়ে আসেন। সেখানে কাঁপতে কাঁপতে বসে পড়েন এবং মারা যান তিনি। এ ছাড়া গতকাল ফেনীর সোনাগাজীতে ঠান্ডাজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে ছায়দুল ইসলাম (২০) নামে এক যুবক মারা যান। ছায়দুল আমিরাবাদ ইউনিয়নের আহম্মদপুর গ্রামের বাসিন্দা। শীত ও ঠান্ডার কারণে ডায়রিয়া ও নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে গত দুদিনে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ৬০ জন রোগী ভর্তি হয়েছে, এর মধ্যে শিশু ও বৃদ্ধের সংখ্যা বেশি।

কমেন্ট করুন

...

সাম্প্রতিক মন্তব্য

Top